চুক্তিতে বিয়ে করেছিলেন প্রিয়াঙ্কা-নিক!

বি-টাউনের অন্যতম জনপ্রিয় যুগল প্রিয়াঙ্কা চোপড়া ও নিক জোনাস। তাঁদের রূপকথার সেই বিয়ের কথা সবার স্মরণে আছে। লাখো ভক্ত প্রিয়াঙ্কা ও নিককে ভালোবাসে। এবার প্রিয়াঙ্কা একটি গোপন কথা প্রকাশ করলেন। জানালেন, বিয়ের আগে নিকের সঙ্গে একটি চুক্তি করেছিলেন। আর সেই চুক্তির কারণেই তাঁদের সম্পর্ক এত মজবুত।

ব্রিটিশ সাময়িকী এলের বরাতে বলিউড বাবলের খবর, সম্প্রতি এক সাক্ষাৎকারে প্রিয়াঙ্কা স্বীকার করেছেন, বিয়ের আগে একটি চুক্তি করেছিলেন তাঁরা। আর সেটি হলো, মাসে অন্তত একবার তাঁদের একত্র হতে হবে, তা সে যত ব্যস্ততাই থাকুক।

বিয়ের আগে নিকের সঙ্গে চুক্তি প্রসঙ্গে এলেকে প্রিয়াঙ্কা বলেন, ‘প্রতি তিন সপ্তাহে আমাদের দেখা হয়। পৃথিবীর যে প্রান্তেই থাকি না কেন, মাসে অন্তত কয়েক দিনের জন্য আমরা উড়ে যাই। বিয়ের জন্য এটাই ছিল আমাদের নিয়ম। নইলে আমরা কখনো পরস্পরকে দেখতে পেতাম না।’

মাত্র দুই মাস প্রেমের সুযোগ পেয়েছিলেন প্রিয়াঙ্কা ও নিক। আর এরই মধ্যে নিক হাঁটু মুড়ে বিয়ের প্রস্তাব দেন। পিসি বলেন, ‘ওই সময় আমি প্রস্তাবটা আশা করিনি… মাত্র দুই মাস! ভেবেছিলাম হবে, কিন্তু তখন হতবাক হয়ে গিয়েছিলাম।’

২০১৮ সালের ডিসেম্বরে নিক জোনাসের সঙ্গে সাতপাকে বাঁধা পড়েন প্রিয়াঙ্কা চোপড়া। ভারতের যোধপুরের উমেদ ভবন প্রাসাদে হয় তাঁদের রাজকীয় বিয়ের আয়োজন। সনাতন ও খ্রিস্টান রীতিতে হয় তাঁদের বিয়ে। ভারতের পর যুক্তরাষ্ট্রের লস অ্যাঞ্জেলেসে হয় তাঁদের বিয়ের পার্টি। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে প্রায়ই তাঁরা দারুণ সব ছবি শেয়ার করে নিজেদের ভালোবাসার গল্প ভক্তদের জানান দেন।

যা হোক, নিজের জীবনীগ্রন্থ ‘আনফিনিশড’ প্রকাশের জন্য প্রস্তুত বিশ্বতারকা প্রিয়াঙ্কা চোপড়া জোনাস। শৈশব থেকে এ পর্যন্ত নিজের জীবনের প্রতিটি অধ্যায় সেই বইয়ে বর্ণনা করেছেন। কঠোর পরিশ্রম আর গভীর মনোযোগই ভারতের উত্তর প্রদেশের বেরেলিতে জন্ম নেওয়া প্রিয়াঙ্কাকে বিশ্বতারকায় পরিণত করেছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *