দারাজ বনাম পাকিস্তান: বাংলাদেশ দলের জার্সি নিয়ে ফেসবুকে ‘ট্রোল’

পাকিস্তান- বাং’লাদেশের খেলা মানেই টানটান উত্তেজনা। খেলার মাঠে কোন দলই হার মেনে নিতে চায়না। তবে শেষ হাসি হাঁসতে হয় যে কোন এক দলকেই। নতুন খবর হচ্ছে, পাকিস্তানের বিপক্ষে টি-টোয়েন্টি সিরিজে বিজ্ঞাপনে ভরা বাং’লাদেশ দলের নতুন জার্সি নিয়ে

ব্যাপক ট্রোল চলছে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে। ফেসবুকে অধিকাংশ ক্রি’কেটপ্রেমী প্রশ্ন তুলেছেন, এবারের ম্যাচ কি ‘দারাজ বনাম পাকিস্তান’ হচ্ছে নাকি ‘বাংলাদেশ বনাম পাকিস্তান’? এমন প্রশ্ন তোলার

কারণও আছে। কেননা দুদলের জার্সি পাশাপাশি করলে বিষয়টি দৃশ্যত তেমনই দাঁড়ায়। মিরপুর শের-ই-বাংলা জাতীয় ‘স্টেডিয়ামে শুক্রবার দুপুর ২টায় শুরু হয়েছে দু’দলের লড়াই। ম্যাচ শুরুর পর থেকেই ফেসবুক ‘দারাজ বনাম পাকিস্তান’ ক্যাপশনের ছবি ও পোস্টে

একাকার হয়ে যায়। জার্সি জুড়ে স্পন্সর প্রতিষ্ঠানের নাম একাধিকবার বড় বড় করে লেখায় বাংলাদেশ লেখাটা যেন ক্ষীণ হয়ে গেছে। এনিয়ে বিসিবির কঠোর সমালোচনা করছেন ক্রিকেট ভক্তরা। নতুন ডিজাইনে তৈরি এই জার্সির বুকের নিচের অংশটার পুরোটাই

সবুজ। বুকের উপরে কিছুটা জায়গা লাল। এরপর গলার কাছাকাছি অংশে আবার সবুজ রঙ। সামনের অংশে বড় করে লেখা দারাজের নাম। এর নিচে রয়েছে বাংলাদেশের নাম। গলার কাছাকাছি অংশেও রয়েছে দারাজের নাম। বুকের বাম পাশে রয়েছে বিসিবির

লোগো। ফেসবুকে দুদলের জার্সি শেয়ার করে সাইফুল ইসলাম মাহাদী লিখেছেন, ‘‘দারাজ বনাম পাকিস্তান। আসলে জাতি হিসেবে আমরা কত নিচে নেমে যাচ্ছি। এগুলো ছোট ছোট উদাহরণ।টাকার জন্য নিজের দেশকেও বিকিয়ে দেওয়া হচ্ছে। মানে কি যে শুরু

হইছে ক্রিকেট বোর্ডে।’’ আরাফ লিখেছেন, ‘‘এটা বাংলাদেশ জাতীয় দলের জার্সি নাকি দারাজ কোম্পানির অফিশিয়াল ড্রেসকোড? উপরে নিচে ডানে বামে শুধু দারাজ আর দারাজ বাংলাদেশটা কই? বিসিবির ফান্ডে

এতো এতো টাকা থাকতে জার্সি এতো বিজ্ঞাপনে ভরা হয় ক্যামনে? বাংলাদেশকে যারা নিজ কোম্পানির নামের চেয়ে বেশি ফু’টিয়ে জার্সি যারা দিতে পারবে তাদেরকেই স্পন্সর দেয়া হোক।’’

জার্সি নিয়ে ট্রোলে যোগ দিয়েছেন মিডিয়া ব্যক্তিত্ব ও চিকিৎসক আব্দুন নূর তুষার। ফেসবুকে তিনি লিখেছেন, ‘‘ভালো লেগেছে। দারাজ বনাম পাকিস্তান।’’সূত্র: বিডি২৪রিপোর্ট

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *