তাইওয়ানের প্রেসিডেন্টের বক্তব্যে ‘চীনের নিন্দা’

জাতীয় দিবসে তা’ইওয়ানের প্রেসিডেন্ট তাসাই ইন-ওয়েনের দেওয়া বক্তব্যের নিন্দা জানিয়েছে চীন সরকার। স্থানীয় সময় রোববার (১০ অক্টোবর) বেইজিংকে কড়া হুঁশিয়ারি দিয়ে প্রেসিডেন্ট তাসাই ইন-ওয়েন বলেন,

তাইওয়ান কখনও চী’নের কাছে মাথা নত করবে না। দেশের মানুষের গ’ণতান্ত্রিক অ’ধিকার রক্ষায় নিজেদের প্রতিরক্ষা বলয় জো’রদার করার কথাও জানান তিনি। চীনের তাই’ওয়ানবিষয়ক কা’র্যালয় থেকে রোববার

জানানো হয়, তাইওয়ান স্বা’ধীন হতে চাওয়ার কারণে আলোচনার দ্বার বন্ধ হয়ে যাচ্ছে। এ ধরনের বক্তব্য উসকানিমূলক ও তথ্যের বিকৃতি ঘটিয়েছে। স্থানীয় সময় শনিবার (৯ অক্টোবর) ‘তাইওয়ানকে পুনরায় একত্র

করার ঘোষণা দেন চীনের প্রেসিডেন্ট শি জিনপিং। তবে শান্তিপূর্ণভাবেই তাইওয়ানকে একত্র করা হবে বলে জানান তিনি। চীনের প্রেসিডেন্টের এ অঙ্গীকার ঘোষণার পরিপ্রেক্ষিতে তাইওয়ানের প্রে’সিডেন্ট পাল্টা হুঁশিয়ারি

দেন। বিভিন্ন আন্তর্জাতিক গণ’মাধ্যম সূত্রে জানা গেছে, বেইজি ধারাবাহিকভাবে তাইওয়ানকে রাজনৈতিক ও সামরিক চাপের মুখে ফেলেছে। প্রতিনিয়ত তাইওয়ানের আকাশে চীনা যুদ্ধবিমান টহল দিচ্ছে। অ’ক্টোবরের প্রথম সপ্তাহেই বেইজিংয়ের ১৪৯টি সামরিক বিমান টহল

দিয়েছে তাইওয়ানের আকাশ সীমায়। তা’ইওয়ানকে নিয়ে যুক্তরাষ্ট্র ও চীনের মধ্যে এক ধরনের চাপা উত্তেজনা বিরাজ করছে। এর মাঝেই তা’ইওয়ানকে একত্র করার ঘোষণা দেন শি জিনপিং। চীন তা’ইওয়ানকে তাদের

নিজস্ব রা’জ্য দাবি করে আ’গ্রাসন চালিয়ে আসছে। যদিও তাইওয়ান তাদের স্বতন্ত্র বলে দাবি করে। সম্প্রতি তাইওয়ানকে নিয়ে যুক্তরাষ্ট্রের নানা পদক্ষেপগ্রহণ, চীনের মাথাব্যথার কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে। সূত্র: আল জাজিরা

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *