স্ত্রীর সঙ্গে দেখে করতে গিয়ে নির্যাতনের শিকার যুবক

শ্বশুরবাড়িতে স্ত্রীর সঙ্গে দেখা করতে গেলে এক যুবককে গাছে বেঁধে নির্যাতনের আভিযোগ উঠেছে শ্বশুর-শাশুড়ির বিরুদ্ধে। সোমবার (২০ সেপ্টেম্বর) ঠাকুরগাঁও জেলার রাণীশংকৈল উপজেলার ভাঙবাড়িতে এ ঘটনা ঘটে। বৃহস্পতিবার (২৩ সেপ্টেম্বর) দিনগত রাত ১২টার দিকে শাওন আমিন নামে এক ব্যক্তি নির্যাতনের ভিডিওটি ফেসবুকে পোস্ট করলে ভাইরাল হয়ে যায়। ইতোমধ্য ভিডিওটি কয়েকশ মানুষ শেয়ার ও মন্তব্য করেছেন।

অনেকে নির্যাতনকারীদের গ্রেফতার করে আইনের আওতায় আনার দাবি জানিয়েছেন। নূর মোহাম্মদ নামে একজন মন্তব্য করে বলেন, ছেলেটিকে যারা গাছে বেঁধে নির্যাতন করেছে তাদের দ্রুত আইনের আওতায় নিয়ে আসার জন্য প্রশাসনের সু-দৃষ্টি কামনা করছি।

এলাকাবাসী জানায়, একই এলাকার করিমুলের মেয়ের প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে ওই যুবকের। দীর্ঘদিন সম্পর্কে থাকার পর তারা বিয়ের সিদ্ধান্ত নেন। এক পর্যায়ে পরিবারকে না জানিয়ে তারা বিয়ে করে আত্মগোপনে থাকেন।

এদিকে মেয়ের পরিবার থেকে ছেলের পরিবারকে মেয়েকে ফিরিয়ে দিতে চাপ প্রয়োগ করতে থাকে। বিয়ে মেনে নেওয়ার প্রতিশ্রুতিও দেয়। মেয়ের পরিবার প্রভাবশালী হওয়ায় ছেলের পরিবার ভীত হয় এবং ছেলেকে ফিরে আসার আকুতি জানায়। মেনে নেওয়ার প্রতিশ্রুতি পেয়ে ছেলেও মেয়েকে পরিবারের কাছে দিয়ে আসে।

পরে সোমবার (২০ সেপ্টেম্বর) বিকেলে স্ত্রীর সঙ্গে দেখা করতে তার বাসায় যান ওই যুবক। তখনই মেয়ের বাবা-মা তাকে গাছের সঙ্গে বেঁধে অমানবিক নির্যাতন করতে থাকেন। ওই যুবক চিৎকার করে কেঁদে কেঁদে ছেড়ে দেওয়ার আকুতি জানান, বারবার ক্ষমা চান। তবুও তাকে মারধর করতে থাকে মেয়ের পরিবার। শেষে পুলিশ গিয়ে গুরুতর অবস্থায় উদ্ধার করে যুবককে।

এ বিষয়ে রাণীসংকৈল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) জাহিদ ইকবাল বলেন, খবর পেয়ে পুলিশ তাৎক্ষণিকভাবে ছেলেটি উদ্ধার করে রাণীংশকৈল স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে। এ ঘটনায় এখন পর্যন্ত কাউকে গ্রেফতার করা সম্ভব হয়নি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *