তালেবানের অধীনেই কাবুল বেশি নিরাপদ মনে হচ্ছে: রাশিয়া

তালেবান কাবুল দখলের পর প্রথম ২৪ ঘণ্টায় শহরটিকে যতটা নিরাপদ করে তুলেছে, আফগানিস্তানের আগের প্রশাসনের অধীনে রাজধানী এতটা নিরাপদ ছিল না বলে মন্ত’ব্য করেছেন দেশটিতে রাশি’য়ার রাষ্ট্রদূত দিমিত্রি

ঝিরনভ। আ’ফগান পরিস্থিতি নিয়ে পশ্চিমা দেশগুলোর উদ্বেগের মধ্যেই সোমবার তিনি এ কথা বলেছেন। খবর রয়টার্সের। ম’স্কোর ইখো মস্কভি রেডিও স্টেশনের সঙ্গে

কথোপকথনে ঝিরনভ বলেছেন, এখন পর্যন্ত তালেবান যে আচরণে করেছে, তাতে তিনি সন্তু’ষ্ট। রুশ রাষ্ট্রদূত বলেন, তাদের মনোভাব ‘ভালো, ইতি’বাচক ও যথাযথ।’

সোমবার বলেন ঝিরনভ আরও বলেন, ‘গতকাল (গনির) শাসন তাসের ঘরের মতো ভেঙে পড়ে। ওই বিশৃঙ্খল পরিস্থিতি, ক্ষ’মতায় কেউ না থাকার সুযোগে লুটেরারা রাস্তায় নেমে আসে’। তিনি জানান,

রোববার প্রথমে তালেবানের নির’স্ত্র ইউনিট রাজধানীতে ঢোকে এবং সরকার ও মা’র্কিন বাহিনীকে তাদের অস্ত্র জমা দিতে বলে। গানি পালিয়ে যাওয়ার পর এক পর্যায়ে সশস্ত্র মূল ইউ’নিটগুলো ভেতরে প্রবেশ করে। তালেবান

যোদ্ধারা এখন রাশি’য়ার দূতাবাসের বাইরে আছে, তাদের সঙ্গে মঙ্গলবার দূতাবাসের নিরাপত্তা বিষয়ে বিস্তারিত আলাপ হবে বলেও জা’নিয়েছেন ঝি’রনভ। এদিকে তালেবান আ’ফগানিস্তান দখ’লের ল’ড়াইয়ে তাদের বিজয়

ঘোষণার দুদিন পর সে’খানে যেসব ঘটনা ঘটেছে তার জন্য আমেরিকাকে দায়ী করে তীব্র সমালোচনা প্রকাশিত হয়েছে রাশিয়ায় আ’জকের সংবাদপত্রগুলোতে। সরকারি সংবাদপত্র রসি’ইসকায়া গেজেটায় পররাষ্ট্র নীতি বিষয়ক

বিশ্লেষক ফি’য়োদোর লুকিয়ানফ দেশটির ঘটনাবলীকে একটা ‘চরম বিশৃঙ্খলা’ বলে বর্ণনা করেছেন। তিনি বলেছেন, ‘আ’মেরিকার মদতপুষ্ট প্রশাসন তাসের ঘরের মত ভেঙে পড়েছে। আমেরিকানরা ঘরে ফেরেনি, তারা পালিয়েছে।’

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *