করোনার মধ্যে নতুন করে বিপদ, ভারত-চীন সীমান্তে ফাটল; হাই অ্যালার্ট জারি

প্রাণঘাতী করোনাভাইরাসের তাণ্ডবে মহাবিপর্যয় নেমে এসেছে ভারতজুড়ে। দেশটিতে গত ২৪ ঘণ্টায় ৩ লাখ ৪৬ হাজার মানুষ সংক্রমিত হয়েছে, যা বিশ্বের সব দেশের রেকর্ড ভেঙে একদিনে সংক্রমণের নতুন রেকর্ড। এছাড়া এই সময়ে দেশটিতে মৃত্যু হয়েছে ২৬০০ মানুষের।

এর মধ্যেই নতুন বিপদের আশঙ্কা দেশটির উত্তরাখণ্ড রাজ্যে। শুক্রবার রাতে ফেটে গেছে ভারতের উত্তরাখণ্ডের চামোলির একটি হিমবাহ। বিপদের আশঙ্কায় প্রমাদ গুনছে চামোলি। ইতিমধ্যেই ওই ফেটে যাওয়া

ওই হিমবাহের পানিতে ঋষি গঙ্গার পানির স্তর বেড়েছে ২ ফুট। এখনও পর্যন্ত ক্ষয়ক্ষতির কোনও খবর পাওয়া যায়নি। তবে বিপদের কথা মাথায় রেখে চামোলি জেলায় হাই অ্যালার্ট জারি করেছে স্থানীয় প্রশাসন।

উত্তরাখণ্ডের ডিজিপি অশোক কুমার সংবাদমাধ্যমকে জানিয়েছেন, হিমবাহ ফাটার জেরে কারও মৃত্যু হয়েছে কিনা তা খোঁজ খবর নিয়ে দেখা হচ্ছে। খারাপ আবহাওয়ার জন্য সঠিক খবর এখনও আসছে না। পরিস্থিতি জানতে বিশেষ টিম পাঠানো হয়েছে। এলাকায় ইন্দো-তিব্বতিয়ান বর্ডার পুলিশ (আইটিবিপি) মোতায়েন করা হয়েছে।

রাজ্য সরকারের পক্ষ থেকৈ জানানো হয়েছে, এলাকায় প্রবল তুষারপাতের জন্য হিমবাহটি ফেটে গিয়েছে। ওই এলাকায় বর্ডার রোড অর্গানাইজেশনের যে টিম কাজ করছিল তাদের সঙ্গে যোগাযোগের চেষ্টা হচ্ছে।

হিমবাহটি ফেটেছে ভারত-চীন সীমান্তে চামোলির সুমা গ্রামে।হিমবাহ ফাটার খবর পাওয়ার পর উত্তরাখণ্ডের মুখ্যমন্ত্রী তিরথ সিং রাওয়াত জানিয়েছেন, নিতি উপত্যকার সুমায় ওই হিমবাহটি ফেটেছে। এ নিয়ে হাই অ্যালার্ট জারি করা হয়েছে। বর্ডার রোড অর্গানাইজেশনের সঙ্গে যোগাযোগ রেখে চলছে সরকার। এ নিয়ে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহও খোঁজ খবর নিচ্ছেন। সূত্র: জিনিউজ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *